একটি পবিত্র বাসর । স্বামী স্ত্রীর ভালোবাসার গল্প

একটি পবিত্র বাসর

Writer :Md. Ahsan Sakib

আজ শ্রাবণ ও হোমায়রার বিয়ে হয়েছে, তারা
কেউ কাউকে ব্যক্তিগত ভাবে চিনেনা পারিবারিক
ভাবে তাদের বিয়ে হয়েছে।
বাসর ঘরে বসে আছে হোমায়রা অপেক্ষা
করছে তার স্বপ্ন পুরুষের জন্যে। তার মনের
মাঝে এক দিকে যেমন আনন্দ উত্তেজনা কাজ
করছে অন্য দিকে ভয় ও বিরাজ করছে।
বিয়ের সাজে হোমায়রাকে অপরুপ সুন্দর লাগছে
ডিম লাইটের নীল আলো মেয়েটির সৌন্দর্যকে
আর ও বাড়িয়ে দিয়েছে অপেক্ষার অবসান ঘটিয়ে
বাসর ঘরে শ্রাবণ প্রবেশ করল শ্রাবন,প্রবেশ
করতেই হোমায়রা উঠে এসে তাকে সালাম করল
শ্রাবণ সালাম গ্রহন করে হোমায়রাকে দুহাত ধরে
তুলে কপালে চুম্বন একে দিয়ে বলল চল আমরা দুই
রাকাত নফল নামাজ কায়েম করে আল্লাহর শুকরিয়া
জানাই
নামাজ শেষ করেই শ্রাবন হোমায়রাকে বলল
তোমাকে আমার কিছু বলার আছে। আজ আকাশে
খুব সুন্দর চাদ উঠেছে সাথে তারা ও জলছে চল
আমরা ছাদে গিয়ে গল্প করি ||

হোমায়রাঃ- মনে মনে খুব খুশি। হুম চলুন আপনাকে
ও আমার কিছু বলার আছে ||

ছাদের এক কোণে দুজনে বসে আছে ||

শ্রাবণঃ- আজ আকাশ ও চাদকে যতটা সুন্দর লাগছে তার
চেয়ে বেশি সুন্দর লাগছে তোমাকে ঠিক যেন
আমার স্বপ্নপরি যাকে আমি চেয়েছিলাম জীবনে
তাকে আমি পেয়েছি। তোমার রেসমি কালো চুল
গুলা যদি খুলে দিতে তাহলে আর ও ভাল লাগত ||

স্বামীর মুখে এমন কথা হুমায়রা খুব লজ্জা
পেয়েছে খুশিতে মনটা ভরে উঠেছে।সে চুল
গুলা খুলে দিল হালকা বাতাসে উড়সে চুল গুলু শ্রাবন
সেই সৌন্দর্য অপলকে উপভোগ করছে ||

শ্রাবণঃ- আজ থেকে তোমার আমার নতুন জীবন শুরু। এতদিন তুমি ছিলে একটা বাড়ির মেয়ে আর আজ
থেকে তুমি একটা বাড়ির বউ একজনের স্ত্রী।
আজ থেকে তোমার জীবন কাটামো অন্যরকম
ভাবে শুরু করতে হবে। তোমার হাতে তুলে
দেয়া হল একটা সংসারের চাবিকাঠি। আজ থেকে
তোমার অনেক দায়িত্ত্ব। হোমায়রা তুমি ভয় পেও
না। এই সংসার যোদ্ধে তুমি একা নয় আমি তোমার
সহযোদ্ধা। আমরা দুজনে মিলে গড়ে তুলব একটি
সুন্দর সুখি পরিবার

-হোমায়রা এ বাড়ির সবার সাথে তোমাকে মিলে
মিশে চলাফেরা করতে হবে.. ছোট বড় সবার
সাথে বিশেষ করে আমার মা বাবার সাথে তোমাকে
ভাল সম্পর্ক গড়ে তুলতে হবে এমন সম্পর্ক
গড়ে তুলবে যাতে সবাই তোমাকে এ বাড়ির বউ
মনে না করে এ বাড়ির মেয়ে মনে করে
তোমার ভালবাসার মায়া জাল দিয়ে ধরে রাখবে
সবাইকে . দেখবে তোমার জীবন খুব সহজ
হয়ে যাবে

– হোমায়রা আমরা শুধুই ভাল স্বামী স্ত্রী হব না
আমরা খুব ভাল বন্ধুও হব সুখে দু:খে দুজনে মিশে
রব একহয়ে। সংসার জীবনে অনেক রাগ অভিমান
হতে পারে তাই বলে আমরা ভুল বুঝে একে

অপরকে ছেড়ে দুরে যাব না বিশ্বাস নিয়ে সামনে এগিয়ে যাব
অল্প রাগ হালকা অভিমান মাঝে মাঝে একটু জগ্রা অটুঠ
বিশ্বাস আর অপুরন্ত ভালবাসায় ভরপুর থাকবে
আমাদের জীবন ||

হোমায়রা ঃ- আপনি আমার উপর বিশ্বাস রাখবেন আমার
পাছে থাকবেন ভালবাসা দিয়ে সুখ দু:খে বুকে
আগলে রাখবেন। আজ থেকে এই সংসারের
দায়িত্ত্ব আমার। নিজের মনের মত সাজিয়ে আপন
করে নিব এই সংসারকে আমি আপনার ভালবাসায়
আল্লাহর রহমতে সবার দোয়াতে এই সংসারকে
সবসময় সুখি রাখতে চেষ্টা করব ||

শ্রাবণঃ- তোমার কথা শুনে আমার মন ভরে গেল .
এবার তোমার কথা বল ||

হোমায়রাঃ- আমাকে খুব ভালবাসতে হবে কখন ও
অবহেলা করতে পারবেন না। আপনার বুকে ঠাই
দিবেন
আপনাকে পাচ ওয়াক্ত নামাজ কায়েম করতে হবে,
ভোর বেলা আমার পাছে বসে আমার কন্ঠে
কোরয়ান তিলায়াত শ্রবণ করতে হবে!
আমি আপনাকে খুব শাসন করব জ্বালাবো আপনাকে
অনেকটা অগোছালো থাকতে হবে আমি
গোছিয়ে দিব বলে, আপনার কাছ থেকে আমি
বেশি কিছু ছাই না আমার ছোট ছোট আবদার গুলা
পুরন করলেই আমি খুব খুশি হব
আপনার ক্লান্ত মুখের ঘাম আমার শাড়ির আচল দিয়ে
মুছতে দিবেন, তাড়াতাড়ি বাসায় ফিরবেন আমার চুলের
খুপায় বেলিফুল গেতে দিবেন
আর হে আমাদের রুম এর জানালার পাছে বেলিফুল
আর হাসনাহেনা ফুল গাছ লাগাবেন চাদনি রাতে ছাদে
গিয়ে আমকে গান, কবিতা, গল্প শুনাতে হবে। মনে
রাখবেন নীল রং আমার খুব প্রিয়
আর হে জন্মদিন বিবাহ বার্ষীকীতে আমাকে
শুভেচ্ছা জানাতে ভুলবেন না। মাঝে মাঝে আমাকে
নিয়ে বেড়াতে যেতে হবে নদীর তীরে
হাতে হাত রেখে হাটতে হবে , ব্রিষ্টির দিনে
কিন্তু আমাকে নিয়ে বিজতে হবে আর বেশি কিছু
বলতে চাইনা বাকিটা আপনার ভালবাসা দিয়ে বুঝে
নিবেন
আমি আপনার সব কিছুতেই বিরাজ করতে চাই আমি শুধু
আপনার হব আপনি শুধু আমার হবেন ||

শ্রাবণঃ- আমি আমার কল্পনাতে আমার স্বপ্নে আমার
মনের মাঝে এই রকম মেয়ে সাজিয়ে
রেখেছিলাম তুমি সেই আমার স্বপ্নের রাজকুমারি
আমার সুখের ব্রিষ্টি
. আমার বাহু ডোরে বুকের মাঝে সারাজীবন শুধু
তুমি রবে ||

হোমায়রাঃ আপনি আমার স্বপ্ন পুরুষ যাকে নিয়ে আমি
স্বপ্ন সাজিয়েছি
আপনার তরে নিজেকে মেলে দিতে চাই আপনার
পদতলে আমার জান্নাত খুজে নিতে চাই ||

শ্রাবণ হোমায়রাকে কপালে চুম্বন একে দিয়ে
বুকে জড়িয়ে নিল একে অপরকে খুব শক্ত করে
ধরে আছে ||

অত:পর শুরু হল একটি সুখি পরিবার পবিত্র ভালবাসা ||

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *