বলোনা_ভালবাসি -2

বলোনা_ভালবাসি

দেই।
আমি সার্থক বাবা মায়ের একটি মাত্র পুত্র সন্তান।খুব দুষ্টু কিন্তু আমার মনটা খুব ভালো। নিজের মনকেই ভালো বলছি আজব তো। আগে পাবনা থাকতাম আব্বুর চাকরি বলদি হওয়াতে এখন ঢাকাতে থাকি। আর দরজা খুলতে যে মেয়েটার সাথে দেখা হল সে নিলা আমার বড় খালামনির মেয়ে। এবার ইন্টার প্রথম বর্ষের শিক্ষাথী। আমি নিলার চেয়ে একবছরের বড়। তো পরিচয় দেওয়া শেষ এখন খাবার খেতে যাবো।
খাবার টেবিলে এসে দেখি নিলা আগে থেকেই আমার সামনের চেয়ারটাতে বসে আছে। আম্মু খাবার নিয়ে টেবিলে রাখছে।
— সার্থক দেখতো চিনতে পারিস নাকি। বলতো মেয়েটা কে? ( আম্মু)
চিনিনেও না চিনার ভান করে বললাম কে আম্মু চিনলাম না তো। সে কি যার জন্য এতো পাগলামি করতি তাকে চিনতে পারলি না আম্মু বললো। আমি তো বুঝছি আম্মু কিসের কথা বলছে। তাও বললাম বুঝলাম না তোমার কথা। আরে তোর বড় খালার মেয়ে নিলা ওকে চিনতে পারছিস না। ছোট বেলাতে নিলার জন্য কত না পাগলামি করতি মনে পরে। একটু হাসি দিয়ে কথাটি বললো আম্মু। আম্মুর কথা শুনে নিলা মুচকি হাসি দিয়ে চুপ করে গেলো। আমি লজ্জাতে নিলার দিয়ে নজর দিচ্ছি না।
— আচ্ছা আম্মু তোখন আমি ছোট ছিলাম তাই পাগলামি গুলো করতাম কিন্তু এখন তো বড় হয়ছি। ছোট বেলার কথা না তুললেই নয়? ( আমি)
— আচ্ছা আর লজ্জা পেতে হবে না নে খেতে বস। ( আম্মু)
আমি গিয়ে নিলার সামনের চেয়ারটাতে বসলাম। যাতে নিলাকে ভালো করে দেখতে পারি। আসলে মনে মনে এখনো তো নিলাকেই ভালবাসি। চেয়ারে বসে আছি আম্মু খাবার স্রাপ করছে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *